মৌলিক বা সিদ্ধ ধাতু কাকে বলে? মৌলিক বা সিদ্ধ ধাতুর প্রকারভেদ

মৌলিক বা সিদ্ধ ধাতু কাকে বলে? মৌলিক বা সিদ্ধ ধাতুর প্রকারভেদ

যে ধাতুকে ভাঙা বা বিশ্লেষণ করা যায় না, তাকে মৌলিক ধাতু বলে। মৌলিক ধাতুকে ভাঙা যায় না বলে এগুলোকে সিদ্ধ ধাতুও বলা হয়। যেমন : √খা, √যা, √পড়, √দেখ, √রাখ, √হাস্ ইত্যাদি।

মৌলিক ধাতুর প্রকারভেদ
উৎস অনুসারে মৌলিক ধাতুকে তিন ভাগে ভাগ করা হয়। যেমন–
১. তৎসম বা সংস্কৃত ধাতু
২. খাঁটি বাংলা ধাতু
৩. বিদেশি ধাতু।
১. সংস্কৃত ধাতু : বাংলা ভাষায় যে তৎসম ক্রিয়াপদের ধাতুগুলাে ব্যবহৃত হয়, তাকেই সংস্কৃত ধাতু বলে।

২. খাঁটি বাংলা ধাতু : যে ক্রিয়াপদগুলাে সরাসরি সংস্কৃত থেকে আসেনি সে ধাতুগুলােই খাঁটি বাংলা ধাতু
৩. বিদেশি ধাতু : বাংলা ভাষায় আরবি, ফারসি ও হিন্দি ভাষা থেকে আসা ক্রিয়ামূলকে বিদেশি ধাতু বলে।

এখানে যা শিখলাম–
মৌলিক বা সিদ্ধ ধাতু কাকে বলে?; কত প্রকার ও কি কি?; তৎসম বা সংস্কৃত ধাতু কাকে বলে?; খাঁটি বাংলা ধাতু কাকে বলে?; বিদেশি ধাতু কাকে বলে?;

Related posts

Leave a Comment